পিস্তল ঠেকিয়ে সাবেক এমপি রানার হুমকির বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলন

 

সংবাদ জমিন, অনলাইন ডেস্ক ঃঃ
পিস্তল ঠেকিয়ে সাবেক এমপি রানার হুমকির বিরুদ্ধে সংবাদ সম্মেলন অনষ্ঠিত হয়েছে। জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে এ সংবাদ সম্মেলন করেছেন টাঙ্গাইল শহরের বেবীস্ট্যান্ড এলাকার মৃত নরেশ রবি দাসের ছেলে তপন রবি দাস। মঙ্গলবার দুপুরের দিকে টাঙ্গাইল প্রেস ক্লাবের বঙ্গবন্ধু মিলনায়তনে সংবাদ সম্মেলন করেন ওই যুবক।

লিখিত বক্তব্যে তপন রবি দাস বলেন, টাঙ্গাইল জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক স্বপন চৌধুরী গুরুতর অসুস্থ হওয়ায় তার ব্যক্তিগত সহকারি হিসেবে তার দেখাশোনা করছি। গত সোমবার সকাল ১০টার দিকে স্বপন চৌধুরীকে ফিজিওথেরাপি দেয়ার জন্য রেজিস্ট্রিপাড়া মেডিকো হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার পথে সাদা রঙের জিপ গাড়ি নিয়ে সাবেক সাংসদ আমানুর রহমান খান রানা, সদর উপজেলা পরিষদের সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান আব্বাস আলী ৭-৮ টি মোটরসাইকেলের বহর নিয়ে আমার পথরোধ করে নানাভাবে হুমকি দেয়।

কলেজপাড়ার রেজওয়ান খানসহ কয়েকজন আমাকে কলার ও প্যান্ট ধরে টেনে আমানুর রহমান খান রানার গাড়ির সামনে নিয়ে যায়। স্বপন চৌধুরীকে হাসপাতালে নিয়ে যাওয়ার কথা বলার পর আমার পেটে পিস্তল টেকিয়ে জানায়, স্বপনকে খুন করা হবে এবং আমাকে ২৪ ঘণ্টার মধ্যে টাঙ্গাইল ছাড়ার জন্য হুমকি দেয়া হয়। এরপরও টাঙ্গাইল দেখা গেলে আমাকে গুলি করে প্রাণে মেরে ফেলা হবে বলে। এ অবস্থায় আমি চরম নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছি। তাই টাঙ্গাইল থানায় সাধারণ ডায়েরি করেছি।

সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন টাঙ্গাইল জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক স্বপন চৌধুরী, টাঙ্গাইল পৌরসভার কাউন্সিল আমিনুল ইসলাম আমিন প্রমুখ। এ বিষয়ে সাবেক সাংসদ আমানুর রহমান খান রানা বলেন, নরেশ রবি নামে আমি কাউকে চিনি না। এ অভিযোগ সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন।

শিরোনাম